January 23, 2022, 2:34 pm


নিজস্ব প্রতিবেদক

Published:
2021-11-28 19:15:07 BdST

মিস রোটাশিয়া পিংকির মডেলিংয়ে প্রত্যাবর্তন


দেশীয় মডেলিং জগৎকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রতিনিধিত্ব করার মত অল্প সংখ্যক নারী মডেল কাজ করছেন। যাদের পেশাগত দায়বদ্ধতা, প্রাসঙ্গিক শিক্ষা ও দৃষ্টি ভঙ্গি দিয়ে নিজেদেরকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গিয়েছেন।

তাদের মধ্যে জয়া আহসান, জান্নাতুল পিয়া, আজমেরী হক বাঁধন, মৌ, বিদ্যা সীনহা মীম অন্যতম। এই তালিকায় যুক্ত হবার অপেক্ষায় একজন সম্ভাবনাময়ী নারী মডেল হলেন জান্নাতুল ফেরদোসী কাদের পিংকি।

নৈসর্গিক সৌন্দর্যে মোড়ানো উপকূলীয় জেলা কক্সবাজারের নির্মল পরিবেশে বেড়ে ওঠা মেয়ে পিংকি ইউনিভার্সিটি অব ডেভেলপমেন্ট অল্টারনেটিভ নামের একটি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিল্পকলার ইতিহাস বিষয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পূর্ন করেছেন ।

শৈশব ও কৈশোরে কক্সবাজার জেলার শিশু একাডেমী ও শিল্পকলা একাডেমীতে পর্যায়ক্রমে নাচ, গান আবৃত্তিতে হাতে খড়ি হয় তার। কৈশোর থেকেই হেটেছেন স্থানীয় নানা আয়োজকের র‌্যাম্প (Ramp) আয়োজনে।

উচ্চ শিক্ষা গ্রহনের জন্য ঢাকা আসার পর ৫'৭” উচ্চতার পিংকি একাধিক র‌্যাম্প ক্যাটওয়াকে নজর কেড়েছে দেশীয় র‌্যাম্প মডেল বোদ্ধাদের। সেই থেকে বেছে বেছে কাজ করেছেন তিনি, এখনো তা অব্যহত রয়েছে।

অধ্যয়নকৃত ইউনিভার্সিটি অব ডেভেলপমেন্ট অল্টারনেটিভের আন্তঃআয়োজনসহ শহরের বেশ কিছু আয়োজনে নিয়মিত মুখ পারফেক্টশনিস্ট লেডি পিংকি।

সময় পেলেই প্রকৃতির কাছাকাছি চলে যান, বন্ধুদের নিয়ে হইচইয়ে মেতে ওঠেন সহজাত মডেল সবার মধ্যমনি পিংকি।

আকিজ প্লাস্টিক সহ বেশ কিছু টেলিভিশন বিজ্ঞাপনে কাজ করেছেন কিছুটা নিভৃতচারী এই নারী মডেল।

এশিয়ার সকল দেশের রোটারেক্টদের মধ্যে ২০০৮ সালে জান্নাতুল ফেরদৌসী কাদের পিংকি যখন মিস রোটাশিয়া নির্বাচিত হন, তখন তিনি কেবল স্কুলের গন্ডি পেরিয়েছেন।

সাম্প্রতিক বছরসমূহের মধ্যে বেশ কয়েকটি চলচিত্রে অভিনয়ের প্রস্তাব আসলেও প্রাসঙ্গিক নানা কারনে তিনি বিনয়ের সাথে এসব প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন।

নিজেকে আরো তৈরি করে নিতে চান এই কারনে এখনি গড্ডালিকা প্রবাহে গা ভাসাতে চান না এই গুনী মডেল।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে পিংকি বলেন, “মূলত মডেলিংয়ের আন্তর্জাতিক মান অর্জন করে দেশকে প্রতিনিধিত্ব করার ব্যাপারে দায়বদ্ধতা বোধের জায়গা থেকেই আমি এখনো মডেলিং শিখছি।”

রোটারিয়ান পিংক সমাজসেবা মূলক কাজে যুক্ত কৈশোর থেকেই। রোটারী ক্লাবের সদস্য হিসেবে নানা রকম সমাজসেবামূলক কাজে তার দৃঢ় অংশগ্রহন ছিলো সবসময় এবং এখনো আছে।

জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে সচেতন পিংকি সুযোগ পেলে এই ইস্যূতে কাজ করতে চান। এবং একই সাথে অংশগ্রহনমূলক উন্নয়নে বিশ্বাসী র‌্যাম্প মডেল পিংকি দেশকে অনন্য উচ্চতায় দেখতে চান। দারিদ্র্য মুক্ত দেশ তার স্বপ্ন।

মানসম্মত মডেলিংয়ের মাধ্যমে বাংলাদেশকে আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে পরিচিত করাতে চান জান্নাতুল ফেরদৌসী কাদের পিংকি। সেই লক্ষ্যেই তিনি কাজ করে যাচ্ছেন এবং নিজেকে তৈরি করছেন।

Unauthorized use or reproduction of The Finance Today content for commercial purposes is strictly prohibited.


Popular Article from FT বাংলা